রায়হান কবিরকে আইনি সহায়তা দিতে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে চিঠি

প্রবাস ডেস্ক
২৬ জুলাই ২০২০, রবিবার
প্রকাশিত: ০৩:১৯

রায়হান কবিরকে আইনি সহায়তা দিতে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে চিঠি

প্রবাসীদের পক্ষে মালয়েশিয়া সরকারের ‘অবিচারের’ কথা তুলে ধরতে গিয়ে গ্রেফতার হয়ে রিমান্ডে আছেন বাংলাদেশি মো. রায়হান কবির। এই রেমিটেন্স যোদ্ধাকে আইনি সহায়তা দিতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে অনুরোধ জানিয়েছে জাতীয় মানবাধিকার কমিশন।

রবিবার (২৬ জুলাই) পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন বরাবর এ চিঠি পাঠানো হয়।

মানবাধিকার কমিশনের পক্ষে পরিচালক (প্রশাসন ও অর্থ) কাজী আরফান আশিকের পাঠানো চিঠিতে বলা হয়েছে, শুধু সাক্ষাৎকার দেয়ায় এভাবে বিজ্ঞপ্তি দিয়ে খোঁজা, ওয়ার্ক পারমিট বাতিল করা এবং পরবর্তীতে গ্রেফতারের বিষয়ে উদ্বেগ জানিয়েছে বেশকিছু অভিবাসনবিষয়ক জাতীয় ও আন্তর্জাতিক সংগঠন। এদিকে, দেশে তার পরিবারও গভীর উৎকণ্ঠায় দিন কাটাচ্ছে। রায়হান কবিরের বিরুদ্ধে অন্য কোনো অভিযোগ নেই বলে গণমাধ্যম থেকে জানা গেছে। জাতীয় মানবাধিকার কমিশন রায়হান কবিরের বিরুদ্ধে ঘটে যাওয়া বিষয়গুলো নিয়ে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করছে।

এতে আরও বলা হয়, কাতারভিত্তিক গণমাধ্যম আল-জাজিরায় সাক্ষাৎকার দেওয়া মো. রায়হান কবিরকে দেশে ফেরত পাঠানোর ঘোষণা দিয়েছে মালয়েশিয়া। দেশটিতে তাকে কালো তালিকাভুক্ত করা হয়েছে। ফলে তিনি আর কখনো মালয়েশিয়ায় ফিরতে পারবেন না।

করোনা মহামারি চলাকালে অবৈধ অভিবাসীদের সঙ্গে কর্তৃপক্ষের আচরণ নিয়ে আল-জাজিরায় কথা বলার পর মালয়েশিয়া সরকারের টার্গেটে পরিণত হন রায়হান কবির। তার বিষয়ে তথ্য পেতে বিবৃতিও দেওয়া হয়। দেশটির অভিবাসন কর্তৃপক্ষ তাকে ধরতে দুই সপ্তাহ ধরে তল্লাশি চালায়। তাকে গ্রেফতারের পর দেশটি এখন তাকে বাংলাদেশে ফেরত পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

ব্রেকিংনিউজ/ এসএ 

bnbd-ads