শেখ হাসিনার নেতৃত্ব বিশ্বে অনুকরণীয়: প্রতিমন্ত্রী

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
২০ জানুয়ারি ২০২১, বুধবার
প্রকাশিত: ০৫:০৫

শেখ হাসিনার নেতৃত্ব বিশ্বে অনুকরণীয়: প্রতিমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্ব এখন সারাবিশ্বে অনুকরণীয় বলে মন্তব্য করেছেন নৌ পরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী। তিনি বলেন, বিশ্বের প্রভাবশালী দেশগুলো যখন করোনা মোকাবিলায় হোঁচট খেয়েছে, সেখানে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী সফলতার সঙ্গে করোনা মোকাবিলা করে যাচ্ছেন। আজকে পৃথিবীর মানুষ তাদের দেশে করোনা মোকাবিলার জন্য শেখ হাসিনার মতো সরকার প্রধান চায়। পৃথিবীর বিভিন্ন দেশ এখন করোনা মোকাবিলায় শেখ হাসিনার নীতি অনুসরণ করছেন।

বুধবার (২০ জানুয়ারি) দুপুরে বিরল উপজেলা অডিটোরিয়ামে শীতার্ত মানুষের মাঝে শীতবস্ত্র বিতারণ ও অস্বচ্ছল শারিরিক প্রতিবন্ধীদের মাঝে হুইল চেয়ার বিতারণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। 

খালিদ মাহমুদ বলেন, পৃথিবীতে বিভিন্ন ধরনের দুর্যোগ এসেছে, মানবজাতি এই দুর্যোগের মোকাবিলা করেছে। বিপদের হাত থেকে পৃথিবীকে রক্ষা করেছে। তেমনি ২০২০ সালের করোনা মহামারি এই পৃথিবীকে আক্রান্ত করছে এবং সমগ্র পৃথিবীকে বিপদগ্রস্ত করেছে। মানুষ করোনার বিরুদ্ধে এখন পর্যন্ত সংগ্রাম করছে আর ৫৬ হাজার বর্গকিলোমিটারের  দেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ১৬ কোটি মানুষকে নিয়ে বিচক্ষণতার সাথে করোনার মোকাবিলা করে আসছে । 

তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশের স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা ধারণা করেছিল যে, ঘনবসতিপূর্ণ দেশে হাজার হাজার, লক্ষ লক্ষ মানুষের জীবন বিপন্ন হতে পারে। এই বাংলাদেশের অর্থনৈতিক অবস্থা, সমাজব্যবস্থা, শিক্ষা ব্যবস্থা, স্বাস্থ্যব্যবস্থা বিপর্যস্ত হওয়ার সম্ভাবনা দেখা দিতে পারে এবং বাংলাদেশ অন্ধকারের দিকে চলে যেতে পারে। 

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ এই কঠিন পরিস্থিতির মোকাবিলা শুধু করে নাই, সমগ্র পৃথিবীকে জানিয়ে দিয়েছে একজন যোগ্য নেতৃত্ব থাকলে একটি জাতি কিভাবে মোকাবিলা করতে পারে, তা আমরা সমগ্র পৃথিবীকে জানিয়ে দিতে সমর্থ হয়েছি । বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা একটি পত্র দিয়ে প্রধানমন্ত্রীকে অভিনন্দন জানিয়েছেন। বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সমীক্ষায় করোনা মোকাবিলায় বাংলাদেশের সফলতা উঠে এসেছে।

প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন, বাংলাদেশ এখন খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণ, দেশের প্রতিটি শিশু স্কুলে যায়, এমন কোনও ঘর নাই, যে ঘরের সন্তানেরা স্কুলে যায় না। দেশের মানুষেরা চিকিৎসা পায়, বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা শেখ হাসিনা সরকার প্রদান করতে সক্ষম হয়েছে। করোনার ভ্যাকসিন আসছে, আমরা প্রত্যেকটি মানুষকে শুধু দিব তাই নয়, এ ভ্যাকসিন বিনামূল্যে প্রদানের ঘোষণাও দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। 

তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশের মানুষের কোনও অভাব নাই। খাদ্যের কোনও অভাব নাই, বস্ত্রের কোনও অভাব নাই,  দেশের প্রত্যেকটি মানুষ যেন গৃহ পায় এজন্য আগামী ২৩ জানুয়ারি সমগ্র বাংলাদেশের গৃহহীনদের মাঝে ঘর প্রদান কার্যক্রম উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী।  

খালিদ বলেন, আমরা দেশকে উন্নয়নশীল দেশ থেকে উন্নত দেশের স্বপ্ন দেখতে শুরু করেছি। এই বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে। এ মহামারি করোনার মধ্যেও বাংলাদেশের রিজার্ভ ৪৩ বিলিয়ন ডলার দাঁড়িয়েছে। এই করোনার মধ্যেও পার ক্যাপিটা ইনকাম ২ হাজার ডলার ছাড়িয়ে গেছে। বাংলাদেশের জিডিপি এখনও প্লাস আছে। 

শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশের মানুষ সাহসী হয়ে উঠছে মন্তব্য করে তিনি বলেন, করোনার সময়ে দেশের ১৬ কোটি মানুষের ভরণ-পোষণের দায়িত্ব নিয়েছিল সরকার। আস্তে আস্তে এখন কর্ম জীবনে ফিরে গেছে মানুষ। আবার  শিল্পপ্রতিষ্ঠান থেকে ব্যবসা বাণিজ্য ঘুরে দাঁড়িয়েছে। মানুষ এখন আর করোনাকে ভয় পায় না। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে মানুষ সাহসী হয়ে গেছে।

বিরল উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সবুজার সিদ্দিক সাগরের সভাপতিত্বে আরও উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এ কে এম মোস্তাফিজুর রহমান বাবু, উপজেলার আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক রমা কান্ত রায় প্রমুখ।

পরে প্রতিমন্ত্রী তার নির্বাচনী এলাকার বোচাগঞ্জেও শীতার্তদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ করেন।

ব্রেকিংনিউজ/আরএইচ/এসআই

bnbd-ads