স্ত্রী, ভাই-ভাগ্নেসহ ডিআইজি মিজানের বিচার শুরু

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
২০ অক্টোবর ২০২০, মঙ্গলবার
প্রকাশিত: ০৬:৩৫ আপডেট: ০৬:৩৭

স্ত্রী, ভাই-ভাগ্নেসহ ডিআইজি মিজানের বিচার শুরু

জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জন ও সম্পদের তথ্য গোপনের অভিযোগে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) মামলায় সাময়িক বরখাস্ত পুলিশের উপমহাপরিদর্শক (ডিআইজি) মিজানুর রহমানসহ ৪ জনের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগ গঠনের মধ্য দিয়ে মামলার আনুষ্ঠানিক বিচারকাজ শুরু হয়েছে।

একইসঙ্গে আগামী ২৭ অক্টোবর মামলার সাক্ষ্যগ্রহণেরও দিন ধার্য করেছেন আদালত।  

মঙ্গলবার (২০ অক্টোবর) ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-৬ এর বিচারক আল আসাদ আসিফুজ্জামান এ আদেশ দেন। 

ডিআইজি মিজান ছাড়াও মামলার অপর তিন আসামি হলেন- মিজানের স্ত্রী সোহেলিয়া আনার রত্না ওরফে রত্না রহমান, ছোট ভাই মাহবুবুর রহমান ও ভাগ্নে মাহমুদুল হাসান। এর মধ্যে রত্না ও মাহবুবুর পলাতক আছেন। 

এদিকে আজ অভিযোগ গঠনের জন্য ডিআইজি মিজান ও তার ভাগ্নে মাহমুদুল হাসানকে কারাগার থেকে আদালতে হাজির করা হয়। অভিযোগ গঠনের সময় মিজান ও মাহমুদুল নিজেদের নির্দোষ দাবি করে আদালতের কাছে ন্যায়বিচার চান। 

এদিন বিবাদীপক্ষে সিনিয়র আইনজীবী এহসানুল হক সমজী, শাহিনুর রহমান অব্যাহতি চেয়ে শুনানি করেন। দুদকের পক্ষে মীর আহাম্মেদ আলী সালাম আসামিদের বিরুদ্ধে চার্জগঠনের আর্জি জানান। 

জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জন ও সম্পদের তথ্য গোপনের অভিযোগে গেল বছরের ২৪ জুন ডিআইজি মিজানসহ ৪ জনের বিরুদ্ধে মামলা করেন দুদকের পরিচালক মঞ্জুর মোর্শেদ।

অবৈধ সম্পদ অনুসন্ধানের অভিযোগ তদন্ত শেষে করা মামলায় আসামিদের বিরুদ্ধে ৩ কোটি ২৮ লাখ ৬৮ হাজার টাকার অবৈধ সম্পদ অর্জন ও ৩ কোটি ৭ লাখ ৫ হাজার টাকার সম্পদের তথ্য গোপনের অভিযোগ আনা হয়। 

এর আগে গত ২ জুলাই দুদকের উপপরিচালক মঞ্জুর মোরশেদ ডিআইজি মিজানকে ঢাকা মহানগর জ্যেষ্ঠ বিশেষ জজ আদালতে হাজির করলে বিচারক তার জামিন বাতিল করে দেন। 

মামলাটির তদন্ত করে গেল ৩০ জানুয়ারি দুদকের পরিচালক মঞ্জুর মোর্শেদ ডিআইজি মিজানসহ ৪ জনের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন।। 

৪০ লাখ টাকা ঘুষ লেনদেনের অভিযোগে ডিআইজি মিজানের বিরুদ্ধে আরও একটি মামলার বিচারকাজ ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-৪ এ চলমান রয়েছে। মামলাটি সাক্ষ্যগ্রহণ পর্যায়ে রয়েছে। 

জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জন ও সম্পদের তথ্য গোপনের অভিযোগের মামলায় গত ৯ ফেব্রুয়ারি পলাতক দুই আসামির (রত্না ও মাহবুবুর) বিরুদ্ধে গ্রেপতারি পরোয়ানা জারি করেন আদালত। 

ব্রেকিংনিউজ/এমআর

bnbd-ads