ভারতীয় ভূখণ্ডে চীনা সেনাদের প্রবেশ, অবশেষে স্বীকার করল দিল্লি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
৭ আগস্ট ২০২০, শুক্রবার
প্রকাশিত: ০৭:৩৪ আপডেট: ০৯:৪১

ভারতীয় ভূখণ্ডে চীনা সেনাদের প্রবেশ, অবশেষে স্বীকার করল দিল্লি

গত মে থেকে ভারত-চীন সীমান্ত উত্তেজনা চলছে। যেটা ১৫ জুন ভয়াবহ আকার ধারণ করে। এদিন দুই দেশের সেনাবাহিনীর সংঘর্ষে ভারতের ২০ সেনা নিহত হয়। ওই সময় ভারতের প্রধানমন্ত্রী ওই প্রেক্ষিতে বলেন, তার দেশে বাইরেরর কেউ অনুপ্রবেশ করেনি। এ নিয়ে ব্যাপক সমালোচনা শুরু হয়।

এই বিষয়ে আলোচনা গত বেশ কিছুদিন অনেকটাই চাপা পড়ে যায়। কিন্তু এখন আবারও ভারতের পক্ষ থেকে একটি স্বীকারোক্তির মাধ্যমে বিষয়টি সামনে এলো। প্রথমে বিষয়টি নিয়ে তেমন খোলামেলা কোনো ব্যাখ্যা না দিলেও ভারতের পূর্বাঞ্চলীয় লাদাখে গত মে মাসের শুরুর দিকে চীনা সামরিক বাহিনীর সৈন্যরা ঢুকে পড়েছিল বলে স্বীকার করেছে নয়াদিল্লি। 

চীনা সৈন্যের লাদাখে ঢুকে পড়ার ব্যাপারে প্রথমবারের মতো ভারতের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে মঙ্গলবার একটি নথি প্রকাশ করা হয়। কিন্তু এর দুই দিন পরই মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে এই নথি আর পাওয়া যাচ্ছে না বলে জানিয়েছে দেশটির সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি।

ওয়েবসাইটে প্রকাশিত নথিতে বলা হয়, প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখার আশপাশে চীনা সৈন্যদের আগ্রাসন বৃদ্ধি পেয়েছে। তবে গত ৫ মে থেকে গালওয়ান উপত্যকায় এই আগ্রাসন বিশেষভাবে বেড়েছে। গত ১৭ ও ১৮ মে প্যাংগং লেক উত্তর তীর, গগরা ও কুংরাং এলাকায় ঢুকে পড়ে চীনা সৈন্যরা। ‘প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখায় চীনা আগ্রাসন’ শিরোনামের ঐ নথিতে এসব তথ্য উল্লেখ করা হয়। 

এতে বলা হয়, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে উভয় পক্ষের সামরিক বাহিনীর মধ্যে প্রাথমিক পর্যায়ের মতবিনিময় অনুষ্ঠিত হয়। গত জুনে দুই দেশের সামরিক বাহিনীর কমান্ডার পর্যায়ে পতাকা বৈঠক হয়। যদিও গত ১৫ জুন দুই পক্ষের মধ্যে মুখোমুখি সহিংস সংঘাত হয়, এতে উভয় পক্ষে হতাহতের ঘটনা ঘটে।

এর আগে বিভিন্ন সূত্র ভারতীয় ভূখণ্ডে চীনা লাল ফৌজের ঢুকে পড়ার ঘটনায় সোচ্চার হলেও বিষয়টি এড়িয়ে গিয়েছে নরেন্দ্র মোদির নেতৃত্বাধীন বিজেপি সরকার।

ব্রেকিংনিউজ/এম

bnbd-ads