আইএসআইয়ের হয়ে জালনোট পাচার করছে পাকিস্তানি পাইলটরা!

ভারত ডেস্ক
৮ জুলাই ২০২০, বুধবার
প্রকাশিত: ০৪:২৩

আইএসআইয়ের হয়ে জালনোট পাচার করছে পাকিস্তানি পাইলটরা!

ভারতে জালনোট পাচারের পথ বদলে ফেলেছে পাকিস্তানের গুপ্তচর সংস্থা আইএসআই। এই কাজে তাদের নতুন অস্ত্র এখন পাইলটরা। পাকিস্তান ইন্টারন্যাশনাল এয়ারলাইন্সের (পিআইএ) পাইলটদের হাত দিয়েই জাল টাকা চলে যাচ্ছে বিদেশে। বিভিন্ন দেশ ঘুরে তা আসছে নেপালে।

সেখান থেকে সড়ক পথে বা ট্রেনে ঢুকছে ভারতের পশ্চিমবঙ্গে। কেন্দ্রীয় গোয়েন্দাদের কাছে এই তথ্য আসার পর সতর্কবার্তা পাঠানো হয়েছে সংশ্লিষ্ট প্রতিটি মহলে। নেপাল দিয়ে জালনোট ঢোকা আটকাতে সীমান্ত লাগোয়া এলাকায় শুরু হয়েছে কড়া নজরদারি। সশস্ত্র সীমাবলের সংখ্যা বাড়ানো হয়েছে বলেও ভারতের দাবি।

পাকিস্তানের করাচিতে ভারতীয় জালনোটের কারখানা খোলা হয়েছে, এই তথ্য অনেকদিন আগে জেনেছেন গোয়েন্দারা। যার বেশিরভাগ এতদিন কোনও না কোনও ব্যবসায়ী বা ক্যারিয়ার মারফৎ বাংলাদেশ ঘুরে এরাজ্যে ঢুকত। কিন্তু তাদের চিহ্নিত করে ফেলেছেন গোয়েন্দারা।

সম্প্রতি ভারতীয় পুলিশের হাতে ধরা পড়ে দুই ব্যক্তি। তাদেরই একজনকে জেরা করলে কুখ্যাত আন্ডারওয়ার্ল্ড ডন দাউদ ইব্রাহিমের যোগাযোগও সামনে আসে। জানা যায়, কুয়েত থেকে এসেছে এই জাল টাকা। সেখানে তা আনা হয়েছে পাকিস্তানি পাইলটের মাধ্যমে।

যাবতীয় তথ্য ভারতীয় গোয়েন্দা সংস্থার হাতে তুলে দেওয়া হয়। এরপরই কুয়েত প্রশাসনের সঙ্গে যোগাযোগ করেন গোয়েন্দারা। আটক করা হয় পাক বিমান সংস্থার ওই পাইলটকে। জিজ্ঞাসাবাদের মুখে সে জানায়, ওই সিল করা প্যাকেটে জালনোট থাকার বিষয়টি তাকে জানানো হয়নি। প্যাকেটটি না খুলেই এক ব্যক্তির হাতে তুলে দিয়েছিল ওই পাইলট।

পরে তদন্তে নেমে ভারতীয় গোয়েন্দারা আরও জানতে পেরেছেন, বিমান সংস্থার কর্মীদের উপর প্রভাব খাটিয়ে বিভিন্ন কারখানা থেকে জালনোট নিয়ে আসছে আইএসআই। পাকিস্তান থেকে দুবাই, ওমান ও কাতারে প্রতিদিন অসংখ্য বিমান যাতায়াত করে। সেই সব বিমানের পাইলটদের মাধ্যমেই জালনোট যাচ্ছে সংশ্লিষ্ট দেশগুলিতে।

ব্রেকিংনিউজ/অমৃ

bnbd-ads