ঢুকে পড়ছে আম্পান, ২ সমুদ্রবন্দর ও ১১ জেলায় ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
২০ মে ২০২০, বুধবার
প্রকাশিত: ০৯:২৮ আপডেট: ১২:৫৫

ঢুকে পড়ছে আম্পান, ২ সমুদ্রবন্দর ও ১১ জেলায় ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত

অতি প্রবল শক্তি নিয়ে ঢুকে পড়ছে সুপার সাইক্লোন আম্পান। বঙ্গোপসাগর থেকে ধেয়ে আসা এই ঘূর্ণিঝড়টির প্রভাবে দেশের উপকূলীয় অঞ্চলগুলোতে ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত জারি করেছে আবহাওয়া অধিদফতর। 

বুধবার সকাল ৬টা থেকে মোংলা ও পায়রা সমুদ্রবন্দরকে ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে। এছাড়া সাতক্ষীরা, খুলনা, বাগেরহাট, ঝালকাঠি, পিরোজপুর, বরগুনা, পটুয়াখালী, ভোলা, বরিশাল, লক্ষ্মীপুর ও চাঁদপুর এই মহাবিপদ সংকেতের আওতায় থাকবে। এছাড়া চট্টগ্রাম ও কক্সবাজার সমুদ্রবন্দরকে ৬ নম্বর বিপদ সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে।

বুধবার (২০ মে) সকালে আবহাওয়া অধিদফতরের বিশেষ বিজ্ঞপ্তিতে এসব নির্দেশনা জারি করা হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, অতি প্রবল শক্তি নিয়ে ধেয়ে আসা ঘূর্ণিঝড়টি বুধবার সকাল ৬টার দিকে চট্টগ্রাম সমুদ্র বন্দর থেকে ৫৬৫ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে, কক্সবাজার সমুদ্রবন্দর থেকে ৫৪৫ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে, মোংলা সমুদ্রবন্দর থেকে ৩৯০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে এবং পায়রা সমুদ্রবন্দর থেকে ৪১০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে অবস্থান করছিল। 

সকাল থেকে ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্রের ৮৫ কিলোমিটারের মধ্যে বাতাসের একটানা গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় ২০০ কিলোমিটার, যা দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়ার আকারে ২২০ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছিল।

আবহাওয়া অধিদফতরের বিশেষ বিজ্ঞপ্তিতে মোংলা ও পায়রা সমুদ্রবন্দরকে ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত দেখিয়ে যেতে বলছে। ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত মানে হলো ঘূর্ণিঝড় উপকূল অতিক্রমকালে বন্দর ঝড়ের তীব্রতার কপলে পড়তে পারে। বন্দরের ওপর দিয়ে কিংবা পাশ দিয়েই ঝড় উপকূল অতিক্রম করবে।

১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেতই বাংলাদেশের আবহাওয়াজনিত সতর্ক সংকেতের মাপকাঠিতে সর্বোচ্চ সংকেত।

ব্রেকিংনিউজ/এমআর

bnbd-ads