বায়ুদূষণে বছরে সোয়া লাখ কোটি টাকার ক্ষতি

পরিবেশ ডেস্ক
১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০, বৃহস্পতিবার
প্রকাশিত: ০১:২৩

বায়ুদূষণে বছরে সোয়া লাখ কোটি টাকার ক্ষতি

বায়ুদূষণে বাংলাদেশে বছরে প্রায় সোয়া লাখ কোটি টাকার আর্থিক ক্ষতি হচ্ছে।একই কারণে ২০১৮ সালে বাংলাদেশে ৯৬ হাজার শিশুর অকালমৃত্যু হয়েছে।বুধবার (১২ ফেব্রুয়ারি) পরিবেশবিষয়ক আন্তর্জাতিক সংস্থা গ্রিন পিস এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে। 

গ্রিন পিসের প্রতিবেদন থেকে জানা যায়, এই প্রথম বায়ুদূষণের আর্থিক ক্ষতির আনুমানিক হিসাব উঠে এসেছে।দূষণের কারণে প্রতিদিন বিশ্বে মোট আর্থিক ক্ষতি ৮০০ কোটি মার্কিন ডলার।সেখানে বাংলাদেশে বছরে ক্ষতি ১ লাখ ১৭ হাজার ৬০০ কোটি টাকা।একই সমস্যায় ২০১৮ সালে বিশ্বে ৪০ লাখ শিশু তাদের পঞ্চম জন্মদিনের আগেই মারা গেছে।এছাড়া বছরে ৪০ লাখ মানুষ অ্যাজমা বা শ্বাসকষ্টের সমস্যায় আক্রান্ত হচ্ছে।

গ্রিন পিসের এই প্রতিবেদনে বায়ুদূষণের আর্থিক ক্ষতি বলতে চিকিৎসা খরচ, কর্মক্ষমতা কমে যাওয়া, কর্মক্ষেত্রে অনুপস্থিত থাকার কারণে কোনও প্রতিষ্ঠানের উৎপাদনশীলতা কমে যাওয়ার মতো বিষয়গুলো আমলে নেওয়া হয়েছে।

প্রতিবেদনে বিশ্বের বায়ুদূষণের প্রধান কারণ বা উৎস হিসেবে জীবাশ্ম জ্বালানিকে দায়ী করা হয়েছে।মূলত বিদ্যুৎ ও অন্যান্য শক্তি উৎপাদনের কাঁচামাল হিসেবে কয়লা ও তেল ব্যবহৃত হচ্ছে।এসব জ্বালানি যানবাহন, শিল্পকারখানাসহ অন্যান্য কাজেও ব্যবহৃত হচ্ছে।এসব থেকে মানবদেহের জন্য ক্ষতিকর সূক্ষ্ম বস্তুকণা পিএম–২.৫ ও পিএম–১০ বের হচ্ছে।একই সঙ্গে ভারী বস্তুকণাও বাতাসে মিশছে।

গ্রিন পিস যখন বিশ্বে বায়ুদূষণের প্রভাব নিয়ে প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে, তখনও ঢাকাসহ দেশের বেশির ভাগ শহরের বায়ুর মান বেশ খারাপ অবস্থায় রয়েছে।পরিবেশ অধিদফতরের তথ্যানুযায়ী বুধবার ঢাকা, নারায়ণগঞ্জ, সাভার, ময়মনসিংহ ও রংপুর শহরের বায়ুর মান ছিল খুবই অস্বাস্থ্যকর।অন্যদিকে চট্টগ্রাম, খুলনা, রাজশাহী, বরিশাল ও কুমিল্লার বাতাস অস্বাস্থ্যকর অবস্থায় ছিল।

বিশ্বের প্রধান শহরগুলোর বায়ুর মান পর্যবেক্ষণকারী আন্তর্জাতিক প্রতিষ্ঠান এয়ার ভিজ্যুয়ালের হিসাবে, বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টায় ঢাকার বাতাস অস্বাস্থ্যকর অবস্থায় ছিল।যা দূষণের দিক থেকে প্রধান শহরগুলোর মধ্যে ষষ্ঠ।

ব্রেকিংনিউজ/এম

bnbd-ads