সিনেমা ছাড়াই যেভাবে কোটি কোটি টাকা আয় অক্ষয়ের!

বিনোদন ডেস্ক
১৩ মে ২০২০, বুধবার
প্রকাশিত: ০৯:২০ আপডেট: ০৯:২৯

সিনেমা ছাড়াই যেভাবে কোটি কোটি টাকা আয় অক্ষয়ের!

প্রতি বছর তিন থেকে চারটে হিট ছবি দেন অক্ষয় কুমার। বলিউড সব থেকে বেশি ভরসা করে তার ওপরেই। এক বছরে ৭০০ কোটি টাকা উপার্জন করেছে তার ছবি। পঞ্চাশের ওপর বয়স হয়ে গেলেও অক্ষয়ের জীবনশৈলী অত্যন্ত স্বাস্থ্যকর এবং তিনি অসাধারণ নিয়মনিষ্ঠ। 

এই বয়সেও বলিউডের অন্যতম ফিট অভিনেতা তিনি।

এক সময় নানা কাজ করে পেট চালাতেন অক্ষয়। শেফ ছিলেন, মার্শাল আর্ট শেখাতেন, এমনকী গয়নাও বেঁচেছেন। কিন্তু তার জীবনের মোড় ঘুরিয়ে দিয়েছে বলিউড। এখন তিনি গোটা বিশ্বের অভিনেতাদের তালিকায় উপার্জনের ক্ষেত্রে চতুর্থ স্থানে আছেন। 

এর কারণ প্রতি বছর নিয়ম করে একাধিক হিট ছবি দিয়ে যাওয়া। ফোর্বস বলছে, প্রতি ছবি থেকে তিনি ৩৫ থেকে ৭৫ কোটি টাকা উপার্জন করেন। এছাড়া রয়েছে তার নিজস্ব প্রযোজনা সংস্থা ও অন্যান্য বিনিয়োগ। ফোর্বস-এর হিসেব অনুযায়ী ২০১৯-এর অক্টোবরে অক্ষয়ের সম্পত্তির আর্থিক মূল্য ছিল প্রায় ৫০০ কোটি টাকা।

এবার দেখে নেওয়া যাক কী কীভাবে এত টাকা উপার্জন করেন অক্ষয়। তিনি সংখ্যাতত্ত্বে বিশ্বাস করেন, ৯ সংখ্যার ওপর বিরাট বিশ্বাস। ২০১৮ সালে তিনি ছবি প্রতি ২৭ কোটি টাকা নিয়েছিলেন, তাতে একাধিক ৯ আছে বলে। 

গত বছর সেই ফি বেড়ে দাঁড়ায় ছবি প্রতি ৫৪ কোটি টাকা, তাও ৯-এর গুণিতক। কিছু কিছু ক্ষেত্রে তিনি ফি নেন না, তবে ছবির লভ্যাংশ দাবি করেন। রুস্তম-এর জন্য যেমন লাভের ৫০ শতাংশ নিয়েছিলেন তিনি।

অক্ষয়ের ব্র্যান্ড ভ্যালু ৭৪২ কোটি টাকা। তার প্রিন্ট ও ডিজিটাল বিজ্ঞাপন, ব্র্যান্ড এনডোর্সমেন্ট ও সোশ্যাল মিডিয়া প্রমোশনাল পার্টনারশিপ থেকে এই উপার্জন হয়। বিজ্ঞাপনের কাজে দিন পিছু ২-৩ কোটি টাকা রোজগার করেন তিনি। এখন তিনি ৩০টি ব্র্যান্ডের এম্বাসেডর।

অক্ষয়ের দুটি প্রযোজনা সংস্থা আছে- হরি ওম এন্টারটেনমেন্ট ও গ্রেজিং গোট পিকচার্স। যে সব চিত্রনাট্য অক্ষয় পছন্দ করেন সাধারণত সেগুলিই তার সংস্থাদুটি প্রযোজনা করে। অর্থাৎ বক্স অফিসে উপার্জনের একটা বিরাট অংশ যার তার পকেটে।

ব্রেকিংনিউজ/অমৃ

bnbd-ads